আশাশুনিতে জাতীয় ফুটবল টুর্ণামেন্টের ৩য় রাউন্ডের ১ম খেলা ২-২ গোলে ড্র

জি এম মুজিবুর রহমান, আশাশুনি (সাতক্ষীরা) ঃ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট (অনুর্ধ্ব-১৭) ৩য় রাউন্ডের ১ম খেলায় দরগাহপুর ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ও শ্রীউলা ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ২-২ গোলে ড্র করেছে। রবিবার (৮ সেপ্টেম্বর) দরগাহপুর শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়ামে এ খেলা অনুষ্ঠিত হয়।

বিকাল ৪ টায় বিপুল দর্শক সমাগমে তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতা পূর্ণ খেলায় শ্রীউলা ইউনিয়ন ফুটবল একাদশ ২-২ গোলে দরগাহপুর ইউনিয়ন ফুটবল একাদশের সাথে ড্র করে পয়েন্ট ভাগাভাগি করে নেয়। খেলা পরিচালনা করেন সাম্য চৌধুরী। সহযোগি রেফারী ছিলেন আঃ আহাদ, সঞ্জয় কুমার বিশ^াস ও ইমরুল হোসেন। ধারাভাষ্যে ছিলেন আশরাফ হোসেন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) পাপিয়া আক্তার। বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান অসীম বরণ চক্রবর্তী, শ্রীউলা ইউপি চেয়ারম্যান আবু হেনা সাকিল, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা এস এম আজিজুল হক, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক স ম সেলিম রেজা সেলিম, আশাশুনি প্রেস ক্লাব প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি জি এম মুজিবুর রহমান, সাংবাদিক সোহরাব হোসেন, শেখ হিজবুল্লাহ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। সোমবার একই মাঠে শ্রীউলা ইউনিয়ন দল ও খাজরা ইউনিয়ন দল মুখোমুখি হবে। #####

আশাশুনিতে উপজেলা সম্মেলনকে সামনে রেখে স্বেচ্ছাসেবকলীগের প্রস্তুতি সভা

জি এম মুজিবুর রহমান, আশাশুনি (সাতক্ষীরা) ঃ বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছাসবকলীগ আশাশুনি উপজেলা শাখার সম্মেলনকে সামনে রেখে এক প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার বিকালে আশাশুনি বাজার চত্বরে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতি এস এম সাহেব আলির সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে মোবাইলের মাধ্যমে বক্তব্য রাখেন, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সাধারণ সম্পাদক মীর মোস্তাক আলী। বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপদেষ্টা কন্ট্রাক্টর নজরুল ইসলাম, উপজেলা সহ-সভাপতি আঃ হাদী ও বাবুল আক্তার, যুগ্ম সম্পাদক মোঃ শামীম, সাংগঠনিক সম্পাদক জি এম মঞ্জুরুল ইসলাম, উপজেলা ছাত্রলীগ যুগ্ম সম্পাদক মিজানুর রহমান, কলেজ সভাপতি তাজ, রাসেল, বিভিন্ন ইউনিয়ন সভাপতি/সেক্রেটারী এবং উপজেলা আওয়ামীলীগ ও সহযোগি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। সভায় জেলার নির্দেশক্রমে আগামী ১১ অক্টোবর উপজেলা সম্মেলনের দিন ধার্য করা হয়। এছাড়া খাজরা ইউনিয়ন সেক্রেটারী রোকনুজ্জামানের নামে মিথ্যা মামলা (নং ৫/২২২) রুজুর প্রতিবাদ জানান হয়। যারা আগামী ইউপি নির্বাচনে প্রার্থী হতে ইচ্ছুক তাদেরকে দলীয় কার্যক্রমের পাশাপাশি জনগণের পাশে থেকে কাজ করতে আহবান জানান হয়। ####

আশাশুনিতে জাতীয় স্কুল ও মাদরাসা গ্রীষ্মকালীন ফুটবলের ৩টি খেলা অনুষ্ঠিত

জি এম মুজিবুর রহমান, আশাশুনি (সাতক্ষীরা) ঃ ৪৮ তম জাতীয় স্কুল, মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষা গ্রীষ্মকালীন ক্রীড়া প্রতিযোগিতা- ২০১৯ এর উপজেলা পর্যায়ের ফুটবল প্রতিযোগিতায় ৩টি খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার (৮ সেপ্টেম্বর) চাপড়া কেওড়া পার্ক ফুটবল মাঠে এ খেলা অনুষ্ঠিত হয়।

ফুটবল (বালিকা গ্রুপ) ১ম খেলায় গোদাড়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয় দল ৩-২ গোলের ব্যবধানে ফকরাবাদ বালিকা বিদ্যালয় দলকে পরাজিত করে। ২য় খেলায় কচুয়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয় দল ৪-৩ গোলে পূর্ব কাদাকাটি বালিকা বিদ্যালয় দলকে পরাজিত করে। বালক গ্রুপে শেষ সেমি ফাইনালে কামালকাটি মাধ্যমিক বিদ্যালয় দল ২-১ গোলের ব্যবধানে আশাশুনি সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয় দলকে পরাজিত করে। খেলা পরিচালনা করেন অরুন কুমার সানা, উত্তম কুমার মন্ডল, সঞ্জয় বৈদ্য ও শ্রীকান্ত দাশ। অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে খেলা উপভোগ করেন, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আঃ হান্নান, এসএমসি সভাপতি সঞ্জয় দাশ, সহকারী প্রধান শিক্ষক মাজহারুল ইসলাম ও বিভিন্ন বিদ্যালয়ের শিক্ষকমন্ডলী। সোমবার একই মাঠে সকাল ১০ টায় বালিকা গ্রুপে ফাইনালে মুখোমুখি হবে কচুয়া বালিকা বিদ্যালয় দল ও গোদাড়া বালিকা বিদ্যালয় দল। বেলা ১১ টায় বালক গ্রুপে ফাইনালে মুখোমুখি হবে বুধহাটা বিবিএম কলেঃ স্কুল দল ও কামালকাটি মাধ্যমিক বিদ্যালয় দল। #####


আশাশুনিতে মসজিদের জমি জবর দখলের চেষ্টা


জি এম মুজিবুর রহমান, আশাশুনি (সাতক্ষীরা) ঃ আশাশুনি উপজেলার কুল্যায় মসজিদের জমিতে জোর পূর্বক ধান রোপন করে জবর দখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ইউপি চেয়ারম্যানের উপর বিচারের দায়িত্ব থাকলেও বিচারের আগেই জবর দখলের চেষ্টায় মুসল্লীদের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে।

দাঁদপুর গ্রামের মৃত রাজাউল্লাহ বিশ^াসের পুত্র আহছানুর জানান, একই গ্রামের মৃত কাশেম বিশ^াসের নিকট থেকে নাজমা ও তার স্বামী দাদপুর মৌজায় ৬৭ শতক জমি ক্রয় করেন ১৯৯৯ সালে। তারা ভোগদখলে থাকা অবস্থায় উত্তর দাদপুরের তারকের কাছে ১৬ শতক, ফনিন্দ্র’র কাছে ১৬ শতক ও রুদ্রপুরের মৃত মোকছেদ সরদারের পুত্র সেলিমের কাছে ১৯ শতক জমি ২০০৩ সালে বিক্রয় করেন। সেলিম পরবর্তীতে আহছানুরের কাছে ২০০৩ সালে ১৯ শতক জমি বিক্রয় করেন, তবে রেজিষ্ট্রী করে দেননি। রেজিস্ট্রী না করলেও সেই থেকে আহছানুর জমি ভোগ দখল করে আসছেন। ২০১৭ সালে আহছানুর জমি রেজিস্ট্রী করে নেয়। সেখান থেকে ভোগ দখলে থাকা অবস্থায় গত ১ সেপ্টেম্বর আহছানুর উক্ত জমি দাদপুর বিশ^াবাড়ি জামে মসজিদের নামে রেজিস্ট্রী করে দিয়ে দান করেন। একই গ্রামের মৃত মহাতাব উদ্দিনের পুত্র শওকত হোসেন (ময়না) ২০১৪ সালে একই মৌজায় ৯টি খতিয়ান থেকে ১৫৩টি দাগের মধ্যে ৫০ শতক জমি ক্রয় করেছেন বলে দাবী করেন। তার ক্রয়কৃত জমি কোথায় আছে তা মাপ জরিপ না করে মসজিদের নামে দানকৃত জমির মধ্যে তার জমি আছে দাবী করে গোলযোগ করতে থাকেন। এক পর্যায়ে তিনি থানায় লিখিত অভিযোগ করলে থানা থেকে কুল্যা ইউপির নব-নির্বাচিত চেয়ারম্যান আব্দুল বাছেত আল হারুন চৌধুরীকে ফায়সালার দায়িত্ব অর্পন করা হয়। চেয়ারম্যান বিচার ফায়সালা করার আগেই ৫ সেপ্টেম্বর শওকত বহিরাগতদের নিয়ে মসজিদের জমিতে জোরপূর্বক ধান রোপন করে জবর দখলের চেষ্টা চালান। জানতে পেরে পরবর্তীতে প্রতিপক্ষ জোরপূর্বক রোপনকৃত ধান উপড়ে দিয়েছেন। বিষয়টিকে পুজি করে একটি পক্ষ আহছানুরের বিরুদ্ধে নানা অপপ্রচার ও কুৎসা রটিয়ে হেয় প্রতিপন্ন করার অপচেষ্টায় লিপ্ত হয়েছে। এহেন অপপ্রচারের তীব্র নিন্দা জানিয়ে মসজিদের জমি অবৈধ দখলের বিরুদ্ধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহন ও ইউপি চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে গ্রাম আদালতকে অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য জোর দাবি জানান হয়েছে। #####






সংযুক্তিমূলক সংবাদ ..

  • আশাশুনিতে ১৮টি গৃহ নির্মান সম্পন্ন ॥ প্রধানমন্ত্রী উদ্বোধন করবেন ১৩ অক্টোবর
  • কুল্যার রুহুল আমিন ৭০ বছর বয়সেও বয়স্ক ভাতার সুযোগ পাননি
  • গুনাকরকাটি টু তেঁতুলিয়া সড়কে ভাঙ্গন রোধে উদ্যোগ নেয়নি কেউ
  • বড়দল ইউনিয়ন আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্মলীগ গঠন
  • আশাশুনিতে সংযোগ তৈরি বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত
  • কুল্যায় চেয়ারম্যান প্রার্থী সালামের মতবিনিময় সভা
  • আশাশুনিতে মা ইলিশ ধারা ও ক্রয়- বিক্রয় বন্দ সংক্রান্ত প্রচার
  • কাদাকাটিতে শারদীয় দুর্গোসবের আড়ম মেলা অনুষ্ঠিত
  • Leave a Reply