অবশেষে সাতক্ষীরা পল্লী বিদ্যুৎ কর্মকর্তার ভুলের দ্বায় স্বীকার।

তালা (সাতক্ষীরা) প্রতিনিধিঃ
অবশেষে সাতক্ষীরা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির কর্মকর্তা মোঃ আব্দুল হান্নান (এজিএম-অর্থ) তাদের ভুলের দ্বায় স্বীকার করেছেন। উল্লেখ্য যে, গত ২৬ মে পত্র পত্রিকায় “পল্লী বিদ্যুতের খামখেয়ালীপনায় গ্রাহক হয়রানি চরমে” শিরোনামে খবর ছাঁপা হয়। খবরে উল্লেখ করা হয়, তালা উপজেলার খেশরা ইউনিয়নের শাহপুর গ্রামের প্রায় ৫ শতাধিক গ্রাহকের মে’১৯ মাসের সাথে মার্চ’১৯ মাসের পরিশোধিত বিল যোগ করে বিল প্রস্তুত করা হয়েছে। এ ঘটনায় ফুঁসে উঠেছে এলাকাবাসী। তারা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির বিল প্রস্তুতকারী, এজিএম (ফাইন্যান্স) এবং জিএম (জেনারেল ম্যানেজার) এর খামখেয়ালীপনার বিচার ও অপসারণ চেয়েছেন। এ ধরনের ঘটনা পার্শ্ববর্তি গ্রাম হরিহরনগর এবং জালালপুর ইউনিয়নের কৃষ্ণকাটি ও রথখোলায়ও ঘটেছে বলে খবর পাওয়া গেছে। এছাড়াও গত বছর এপ্রিল মাসে বিদ্যুৎ সংযোগ না থাকলেও শাহপুর গ্রামের মৃত জেহের মোড়লের ছেলে আব্দুল মাজেদ মোড়লসহ দু’জনের নামে বিদ্যুৎ বিল আসে। এছাড়া একই মাসে বালিয়া গ্রামের মোজাম্মেল হক সরদারের আবেদনের প্রেক্ষিতে যে মিটার বসানো হয়, তার রিডিং ছিলো ৪৯০ ইউনিট। প্রথম মাসেই গ্রাহক ২০ ইউনিট বিদ্যুৎ খরচ করেন। কিন্তু পল্লী বিদ্যুৎ অফিস মোজাম্মেল সরদারের নামে বিল করেন ৫১০ ইউনিটের ৩৩৭২ টাকা। মার্চ’১৯ মাসের পরিশোধিত বিল যোগ করে মে’১৯ মাসের বিল প্রস্তুত করায় সাতক্ষীরা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির এজিএম (অর্থ) মোঃ আব্দুল হান্নান এই প্রতিবেদককে বলেন, এটা আমাদের সফটওয়্যারের যান্ত্রিক ত্রুটিজনিত ভুল। আমরা পরে সব গ্রাহককে নতুন করে বিল তৈরী করে দিয়েছি। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, গ্রাহক যাতে হয়রানি না হয়, সে ব্যাপারে আমাদের আন্তরিকতার অভাব নাই। ####






সংযুক্তিমূলক সংবাদ ..

  • তালায় মরহুম ড.এম মতিউর রহমান স্মরনে দোয়া ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত
  • সড়ক দূর্ঘটনায় তালার মাছ ব্যবসায়ী নিহত
  • তালার বালিয়ায় গাছের ডাল পড়ে এক যুবকের মৃত্যু
  • তালায় আবারও যৌতুকের দাবীতে অন্তঃসত্বা স্ত্রীকে পেটালেন পাষন্ড স্বামী
  • তালায় স্ত্রীকে হত্যার পর মুখে বিষ ঢেলে দিয়ে আত্নহত্যা বলে অপপ্রচার।
  • তালার বালিয়ায় ভাঙ্গনকুল রক্ষা বাঁধে অনিয়ম-দূর্নীতি
  • তালায় ‘ছাত্র ঐক্য ফাউন্ডেশনের উপদেষ্টা কমিটি ঘোষনা
  • Leave a Reply