তাবলিগ জামাতের নেতা এবং মুরব্বিদের ব্যর্থতাকে বরদাশত করা হবে না

বিশ্ব ইজতেমায় দুইপক্ষের দ্বন্দ্বের জেরে যেকোনো অপ্রীতিকর পরিস্থিতির বিরুদ্ধে কঠোর হুঁশিয়ারি দিয়েছেন র্যাব মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ। তিনি বলেন, ইজতেমার দায়িত্বশীল ব্যক্তি ও সমষ্টিগতকভাবে রাষ্ট্র কিংবা ইসলামের কাছে দায়বদ্ধ থাকবেন। দায়িত্বশীল ব্যক্তি বা গ্রুপের ভুলে কোনো অপ্রীতিকর পরিস্থিতি সৃষ্টি হোক এটা কাম্য নয়। তাবলিগ জামাতের নেতা এবং মুরব্বিদের ব্যর্থতাকে আমরা বরদাশত করব না। গতকাল দুপুরে রাজধানীর কাওরান বাজারে র্যাব মিডিয়া সেন্টারে ইজতেমার নিরাপত্তা বিষয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ হুঁশিয়ারি দেন।
র্যাব ডিজি বলেন, যেভাবে সরকারের সাথে আলোচনা হয়েছে, সেভাবেই সবাই নিয়ম পালন করবেন এবং বয়ান হবে, আখেরি মুনাজাত হবে। প্রথম গ্রুপ ইজতেমা শেষে শান্তিপূর্ণভাবে প্রস্থান করবে পরে আরেক গ্রুপ আসবে। দুইপক্ষের দ্বন্দ্বের সুযোগে তৃতীয় পক্ষ যেন সুযোগ নিতে পারে, সে বিষয়ে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। আমরা সতর্ক থাকব। তারপরও কেউ যদি এ ধরনের অপচেষ্টা চালায় তাহলে আমরা তাদের সমূলে বিনষ্ট করব।
ইজতেমা নিয়ে গত বছরে বিভিন্ন মতভেদ সৃষ্টি হয়েছিল। তাই এই পরিপ্রেক্ষিতে এবারের ইজতেমায় নিরাপত্তা চ্যালেঞ্জ বেশি। প্রতিবছর ইজতেমা ঘিরে যে ধরনের নিরাপত্তা ঝুঁকি থাকে, এর সাথে এবার বাড়তি কিছু যুক্ত হয়েছে। কোনো ধরনের ঝুঁকি সৃষ্টি হলে মারাত্মক পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে। তাই এসব বিষয় মাথায় রেখে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সমন্বয়ে নিরাপত্তা ব্যবস্থা সাজানো হয়েছে।
তাবলিগ জামাতের মুরব্বিদের উদ্দেশ্য করে র্যাব প্রধান বলেন, তারা যেহেতু আল্লাহর এবাদত করেন, তাই তারা ইজতেমার শান্তিশৃঙ্খলা এবং পরিবেশ বজায় রাখবেন। তাবলিগ জামাতের মুরব্বিদের প্রতি আশা রাখব, তারা যেন এখানে কোনো ধরনের বিভেদ সৃষ্টি না করেন। বিদেশী মেহমানসহ আসা সব মুসল্লিদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আমরা কাজ করছি। বিদেশীদের নিরাপত্তার সাথে দেশের ইমেজ জড়িত। তাই আমরা লক্ষ্য রাখব এমন কোনো ঘটনা যেন না ঘটে, যা বিদেশী মেহমানদের নিরাপত্তা বিঘিœত করে।
ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আপনারা কোনো ধরনের গুজবে কান দেবেন না। আপনাদের পাশে পোশাকে, সাদা পোশাকে থাকব। আইনি সহায়তা প্রয়োজন হলে আমাদের জানাবেন। আমরা দ্রুত সহায়তা দেয়ার চেষ্টা করব। তাবলিগ জামাতের মুরব্বিদের সাথে আমাদের প্রতিনিয়ত যোগাযোগ থাকবে, যাতে করে কোনো ধরনের গুজব সৃষ্টি হলে আমরা দ্রুত নিষ্পত্তি করতে পারি। তাবলিগ জামাতের নেতাদের বলব, কোথাও কোনো তথ্য পেলে, সেটি যাচাই না করে শেয়ার করবেন না।
র্যাব ডিজি বলেন, ইজতেমা ঘিরে আমাদের সব প্রস্তুতি রয়েছে। কোনো ধরনের আশঙ্কার কারণ নেই। আমাদের যে সংখ্যক পোশাকধারী লোক থাকবে, তার চেয়ে বেশি থাকবে সাদা পোশাকে। সিভিল অ্যাভিয়েশনের সাথে সমন্বয় করে আমাদের হেলিকপ্টার টহল থাকবে, মাঠে থাকবে ড্রোন। ইলেকট্রিক ইকুইপমেন্ট দিয়ে ময়দান সুইপিং করা হবে। প্রস্তুত থাকবে ডগ স্কোয়াড। থাকছে সিসি টিভি। সার্বক্ষণিক গোয়েন্দা নজরদারি থাকবে। আশা করছি বিশ্ব ইজতেমা শান্তিপূর্ণভাবে অনুষ্ঠিত হবে।






সংযুক্তিমূলক সংবাদ ..

  • ৮০ হাজার ছাড়িয়েছে ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা
  • প্রধানমন্ত্রীর কাছে ক্ষমা চেয়ে ছাত্রলীগ সভাপতি-সম্পাদকের চিঠি
  • ‘‌গণতন্ত্রের কথা শুনলে আওয়ামী লীগের ‘গায়ে জ্বালা ওঠে’ : মোশাররফ
  • উপকূলে ইলিশের সিন্ডিকেটে জিম্মি জেলে ও ভোক্তারা
  • ব্যাংকিং খাত থেকে জনগণের করের টাকা হরিলুট হয়েছে: টিআইবি
  • মিনিস্টার ফ্রিজের কারখানায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড
  • সার-বীজ বিতরণে ছোটখাটো দুর্নীতি হতে পারে : কৃষিমন্ত্রী
  • ভর্তুকি দিয়ে বিদ্যুৎ দেয়ার পরও দামের প্রশ্ন করলে ব্যবহারের দরকার নেই :প্রধানমন্ত্রী
  • Leave a Reply