কাশ্মীর সীমান্তে দু’পক্ষের গোলাগুলি, যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের অভিযোগ পরস্পরের

kasmir

সাতক্ষীরা নিউজ ডেস্ক :: জম্মু-কাশ্মীরে সহিংসতা যেন কোনোভাবেই কমছে না। নিয়ন্ত্রণরেখায় দু’পক্ষের মহড়া-সংঘর্ষে হানাহানি ও প্রাণহানির ঘটনা ক্রমেই বাড়ছে। গত দুইদিনে কাশ্মীর সীমান্তের নিয়ন্ত্রণরেখায় (এলওসি) ভারতীয় ও পাকিস্তানি বাহিনীর মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় অন্তত চারজন নিহত খবর পাওয়া গেছে।

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবর অনুযায়ী শনিবার দু’পক্ষে গোলাগুলি বিনিময়ে অন্তত দু’জন বেসামরিক লোক নিহত হয়েছে। এ ছাড়া রবিবার ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের উত্তরাঞ্চলের কুপওয়ারা জেলায় ফের ‘বন্দুকযুদ্ধে’দুই উগ্রবাদী (স্বাধীনতাকামী) নিহত হয়েছে বলে দাবি করেছে ভারতীয় সেনাবাহিনী।

জম্মু ও কাশ্মীরের নিয়ন্ত্রণরেখা বরাবর নওশেরা সেক্টরে তিন দফা সংঘর্ষ হয় ভারতীয় এবং পাকিস্তানি বাহিনীর মধ্যে। ভারতের সেনা কর্তৃপক্ষ জানায়, শনিবার গোলাগুলির সময় পাকিস্তানি বাহিনীর ছোড়া গোলা একটি বাড়ির ওপর পড়ে। এতে ৫০ বছর বয়সী তোফায়েল হোসেন এবং তাঁর এক কিশোর আত্মীয় মারা যায়। তিনজন আহত হয়। নওশেরা সেক্টরে গত কয়েক দিনের মধ্যে যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘনের তৃতীয় ঘটনা ছিল এটি।

এদিকে রাজৌরি সেক্টরের চিনগাস এলাকায় ফের ভারী ও মর্টারের গোলা ছুড়েছে দুই পক্ষ। রবিবার সকাল থেকে ওই সীমান্তের ভারতীয় চৌকিগুলো লক্ষ্য করে স্বয়ংক্রিয় অস্ত্র ও মর্টারের গোলা ছুড়েছে পাকিস্তানি বাহিনী। ব্যাপক এ গোলাবর্ষণে বেশ কিছু বাড়িঘর ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এতে কর্তৃপক্ষ সীমান্ত এলাকার এক হাজারের বেশি বাসিন্দাকে সরিয়ে নিতে বাধ্য হয়েছে।

দুই পক্ষই পরস্পরের বিরুদ্ধে যুদ্ধবিরতি লঙ্ঘন ও বিনা উসকানিতে হামলা চালানোর অভিযোগ করেছে।






সঙ্গতিপূর্ণ আরো খবর

  • যুক্তরাজ্যের ম্যানচেস্টারে পপ কনসার্টে ‘সন্ত্রাসী হামলায়’ নিহত ১৯
  • এরদোগান পুনরায় ক্ষমতাসীন একে পার্টির প্রধান নির্বাচিত
  • তুরস্ক সন্ত্রাসী ও সন্ত্রাসবাদের প্রচারণার বিরুদ্ধে লড়াই করছে: এরদোগান
  • ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ফের রুহানি জয়ী
  • জাকির নায়েককে সৌদি আরবের নাগরিকত্ব প্রদান
  • লিবিয়ায় বিমানঘাঁটিতে হামলা, নিহত ১৪১
  • আইএসের বোমা তৈরির গবেষণায় নতুন প্রজন্মের বিস্ফোরক রয়েছে